ISF’ কে নিয়ে বাড়ল জোটে আরও জট, আব্বাসের ব্রিগেডের বক্তব্য সমর্থন করলেন না বিমান বসু

Spread the love

ওয়েব ডেস্ক :-  জোট নিয়ে চলছে আলোচনা ,হচ্ছে না কোন সমাধান ,আজোও ফের বসল বাম কংগ্রেস ।  রবিবার ব্রিগেডের সভা থেকে আইএসএফ প্রধান আব্বাস সিদ্দিকি র বক্তব্য সমর্থন করলেন না বামফ্রন্ট চেয়ারম্যান বিমান বসু। সোমবার বহু অনিশ্চয়তার পর বাম-কংগ্রেসের বৈঠকের পর সাংবাদিক বৈঠকে বসে বিমান বসু সেই ইঙ্গিতই দিলেন। এ নিয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, ”জোটের একটা সর্বসম্মত মত থাকে, বক্তব্য থাকে। তার বাইরে বেরিয়ে অন্য কিছু বলা ঠিক নয়। আশা করি, সকলেই তা বুঝতে পারবেন। পরবর্তীতে কেউ এমন কোনও আচরণ করবেন না।” তাঁর এই কথা থেকেই স্পষ্ট, কংগ্রেসকে নিশানা করে ব্রিগেডের মঞ্চ থেকে আব্বাস যে বার্তা দিয়েছেন, তা নাপসন্দ বিমান বসুদের।

সোমবার বাম  ও কংগ্রেসের মধ্যে আসন সমঝোতা নিয়ে ফের একপ্রস্ত বৈঠক হওয়ার কথা ছিল। দুপুর বৈঠকের কথা থাকলেও প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি অধীর চৌধুরী মুর্শিদাবাদে চলে যান। মাঝপথ থেকে আবার ফিরে এসে বিধান ভবনের বৈঠকে যোগ দেন। এরপর সন্ধেবেলা জোটের খবরাখবর জানাতে বিমান বসু, অধীর চৌধুরীরা যৌথ সাংবাদিক বৈঠকে বসেন। সেখানেই প্রশ্ন ওঠে, রবিবার ব্রিগেড মঞ্চে কংগ্রেসকে আব্বাসের বার্তা দেওয়া নিয়ে। তাতেই ফ্রন্ট চেয়ারম্যানের বক্তব্য, জোটের ‘কমন’ কথা না বলে নিজের মতো ভাষণ রাখা খুব একটা প্রত্যাশিত ছিল না। যা হয়েছে ঠিক হয়নি।

এদিকে, অধীর চৌধুরী সাংবাদিক বৈঠকে জোটে আইএসএফের অংশগ্রহণ নিয়ে কংগ্রেসের অবস্থান ফের স্পষ্ট করে দিলেন। তাঁর কথায়, ”বামেদের সঙ্গে জোট প্রক্রিয়া একরকম পথে এগোচ্ছিল। বহু আসন সমঝোতা হয়ে গিয়েছিল। তার মধ্যে দল অংশ নেওয়ায় গোটা পদ্ধতি রিমডেলিং করতে হচ্ছে। তাই  প্রায় ৯০ শতাংশ আসন নিয়ে সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত হওয়ার পরও তা ধাক্কা খাচ্ছে।” তাঁর এই কথায় স্পষ্ট,  আইএসএফ ‘সংযুক্ত মোর্চার’ জোটসঙ্গী হওয়া নিয়ে প্রবল আপত্তি কংগ্রেসের। যদিও আগামী দু’দিনের মধ্যে প্রার্থী তালিকা ঘোষণা করবে কংগ্রেস, এমনই জানিয়েছেন অধীর চৌধুরী।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.