উত্তর প্রদেশে ভোটের আগে গেরুয়া শিবিরে  জোর ধাক্কা ,মন্ত্রী ও বিধায়কদের বিজেপি ত্যাগ

Spread the love

 

উত্তর প্রদেশে গেরুয়া শিবিরে  জোর ধাক্কা ,মন্ত্রী বিধায়কের বিজেপি ত্যাগ

ওয়েব ডেস্ক:-   গেরুয়া গড়ে ধাক্কা অখিলেশের! ভোটের মুখে ঘর ভাঙালেন যোগী আদিত্যনাথের! এদিনই বিজেপি ছেড়ে সমাজবাদী পার্টিতে যোগ দিলেন যোগী মন্ত্রিসভার অন্যতম সদস্য স্বামী প্রসাদ মৌর্য।এদিকে, এদিন বিজেপি ছাড়েন আরও তিন বিধায়ক। ঘটনায় যারপরনাই অস্বস্তিতে বিজেপি নেতৃত্ব।

উত্তর প্রদেশ সহ দেশের পাঁচ রাজ্যে ভোট হবে ফেব্রুয়ারিতে। উত্তর প্রদেশে নির্বাচন হবে সাত দফায়। ৪০৪ আসন বিশিষ্ট এই রাজ্যের রাশ রয়েছে বিজেপির হাতে। এই বিজেপিতেই ভাঙন ধরালেন সমাজবাদী পার্টি সুপ্রিমো অখিলেশ প্রসাদ যাদব। এদিন যোগী আদিত্যনাথের মন্ত্রিসভার অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ সদস্য স্বামী প্রসাদ মৌর্য। তিনি যোগী সরকারের শ্রমমন্ত্রী ছিলেন। মঙ্গলবার তিনি সমাজবাদী পার্টির রাষ্ট্রীয় সভাপতি অখিলেশ যাদবের সঙ্গে দেখা করে দলবদল করেন। এদিনই দল ছাড়েন বিজেপির তিন বিধায়ক ভগবতী সাগর, ব্রিজেশ প্রজাপতি ও রোশন লাল। তাঁরা মৌর্যর অনুগামী হিসবে পরিচিত।

এদিন দল ছাড়ার আগে যোগীকে নিশানা করেন মৌর্য। তবে ইস্তফাপত্রে লিখেছেন, আদর্শগত পার্থক্য থাকলেও, যোগী আদিত্যনাথের ক্যাবিনেটে কাজ করেছি। দল ছাড়ার কারণ হিসেবে মৌর্য লেখেন, দলিত, পিছিয়ে পড়া জাতি, কৃষক, বেকার ক্ষুদ্র ও মাঝারি ব্যবসায়ীদের প্রতি দল অবহেলা করে। তাই পদত্যাগ করলাম।

পাঁচ বছর আগে উত্তর প্রদেশের রাশ আসে বিজেপির হাতে। এবারও ক্ষমতায় ফিরতে মরিয়া তারা। ভোটও দোরগোড়ায়। এমতাবস্থায় দলের এক মন্ত্রী এবং তিন বিধায়কের পদত্যাগে অশনি সংকেত দেখছেন বিজেপি নেতৃত্ব। শুধু তাই নয়, মৌর্যের সঙ্গে বিজেপির বেশ কয়েকজন বিধায়কের কথা হয়েছে বলেও খবর। তাঁরা যদি বিজেপি ছাড়েন ভোটের মুখে, তাহলে বিজেপি নেতৃত্বের অস্বস্তি বাড়বে বই কমবে না।

মৌর্য দলবদলু। বছর ছয়েক আগে বিজেপিতে যোগ দেন তিনি।তার আগে তিনি ছিলেন মায়াবতীর বহুজন সমাজবাদী পার্টিতে। ওবিসি সম্প্রদায়ের এই নেতা যথেষ্ট জনপ্রিয়। বিজেপিতে তাঁর হোল্ডও রয়েছে। তাই তাঁর কথা শুনে অনেকেই বিজেপি ছাড়তে পারেন বলে আশঙ্কা বিজেপির। তবে মৌর্যকে দলে পেয়ে খুশি অখিলেশ। তিনি বলেন, মৌর্য বরাবর পিছিয়ে পড়া মানুষদের জন্য কাজ করেছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.