ভয়াবহ ঘটনা বাঁশদ্রোণীতে, আমফানের দেড় সপ্তাহ পর গাছ সরাতে গিয়ে বেরিয়ে এল দেহ

Spread the love

*ভয়াবহ ঘটনা বাঁশদ্রোণীতে, আমফানের দেড় সপ্তাহ পর গাছ সরাতে গিয়ে বেরিয়ে এল দেহ।*

বাংলায় ঘূর্ণিঝড় আমফানের তাণ্ডবের পর দেড় সপ্তাহ কেটে গেছে। যুদ্ধকালীন তৎপরতায় সেনা সহ এনডিআরএফ শহরের অধিকাংশ ভেঙে পড়া গাছ সরিয়ে রাস্তা ফাঁকা করছে। আর এমন সময় রবিবার সাতসকালে দক্ষিণ কলকাতার বাঁশদ্রোণী এলাকায় ঘূর্ণিঝড় আমফানের জেরে পড়ে যাওয়া গাছ সরাতে গিয়ে উদ্ধার করা হয়েছে এক ব্যক্তির পচাগলা দেহ।

সূত্রের খবর, বাঁশদ্রোণীর উষা থেকে উদ্ধার করা হয় এক ব্যক্তির পচাগলা দেহ। জানা গিয়েছে, আমফান ঘূর্ণিঝড়ে গাছ পড়ে মৃত্যু হয় ওই ব্যক্তির। রবিবার  সকালে গাছ সরিয়ে এলাকা পরিষ্কার করার সময় পাঁচিলের পাশ থেকে উদ্ধার করা হয় মৃতদেহ। তবে মৃত ব্যক্তির পরিচয় এখনও জানা যায়নি। দেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তে পাঠিয়েছে পুলিশ।

অপরদিকে, একে করোনার সংক্রমণ, তার উপর যে ঘূর্ণিঝড় আমফানে বিপুল ক্ষতিগ্রস্থ বাংলা। চাষের জমি থেকে শুরু করে বাড়ি ঘর প্রায় সবই লোকশান পেরিয়ে উঠতে উঠতে অনেকটা সময় কেটে যাবে। আর তারই মাঝে বাঁশদ্রোণীর এই মর্মান্তিক ঘটনা যেন ভয়াবহ আমফানের কথা আরও একবার মনে করিয়ে দিল কলকাতাকে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.