দূণীর্তির বিরুদ্ধে মুখ্যমন্ত্রীর ঘোষণার কয়েক ঘন্টার মধ্যেই গ্রেফতার প্রাক্তন প্রধান

Spread the love

অয়ন বাংলা,নিজস্ব প্রতিবেদক মালদা :- মুখ্যমন্ত্রীর বার্তা দিয়ে মন্ত্রীর সতর্কীকরণের কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই গ্রেফতার শাসক দলের প্রাক্তন এক জনপ্রতিনিধি। মঙ্গলবার রাতে পুলিশ গ্রেফতার করে রতুয়া-১ ব্লকের মহানন্দাটোলা তৃণমূল গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রাক্তন প্রধান সুকেশ যাদবকে। তাঁর বিরুদ্ধে দু’বছর আগে নির্মল মিশন প্রকল্পে আর্থিক অনিয়মের অভিযোগ ছিল।

সোমবারই এখানে দলের জেলা পর্যবেক্ষক ও ক্রেতাসুরক্ষা মন্ত্রী সাধন পাণ্ডে জানান, দলীয় পঞ্চায়েত প্রধান থেকে শুরু করে কারও বিরুদ্ধে ওঠা দুর্নীতির অভিযোগ বরদাস্ত করা হবে না। মঙ্গলবারও জেলা প্রশাসনের সঙ্গে বৈঠকেও একই বার্তা দেন তিনি। তার পরেই নড়েচড়ে বসে জেলা পুলিশ। বুধবার পুলিশ সুপার অলোক রাজোরিয়া বলেন, “ধৃত প্রাক্তন প্রধান সুকেশ যাদবের বাড়ি রতুয়া-১ ব্লকের মহানন্দাটোলা গ্রাম পঞ্চায়েতের শ্যামগোপটোলা গ্রামে। মঙ্গলবার গভীর রাতে বাড়ি থেকেই তাঁকে গ্রেফতার করে রতুয়া থানার পুলিশ।” ধৃতকে এ দিন চাঁচল মহকুমা আদালতে তোলা হয়। আদালত সূত্রে জানা গিয়েছে, ধৃতের সাতদিনের পুলিশি হেফাজতের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। প্রশ্ন উঠেছে, সুকেশের বিরুদ্ধে দু’বছর আগে মামলা হওয়া সত্ত্বেও এতদিন পর তাঁকে গ্রেফতার করা হল কেন। তৃণমূলের ছত্রছায়ায় থাকাতেই কি তাকে এতদিন গ্রেফতার করা হয়নি? এখন মুখ্যমন্ত্রী-মন্ত্রীর বার্তা পেয়েই কি পুলিশ সক্রিয় হয়ে পড়ল? পুলিশকর্তারা অবশ্য এ নিয়ে মন্তব্য করতে চাননি।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.