গরীব পরিবারগুলিকে মাসে ৬০০০ টাকা দেওয়ার দাবী জানিয়ে , মোদীর কাছে অনুরোধের চিঠি বিদ্দজনদের

Spread the love

করোনার জের: গরীব পরিবারগুলিকে মাসে ৬০০০ টাকা দিন, মোদীর কাছে অনুরোধের চিঠি

ওয়েবডেস্ক:- করোনর জেরে বেহাল অবস্থা গরীব মানুষদের ,তাই বিদ্দজনেরা দাবী ্যাকাউন্টে সরাসরি ছয় হাজার টাকা দেওয়ার। করোনার জেরে বেহালদশা ভারতের। ক্রমাগত বেড়ে চলেছে মারণ এই রোগে আক্রান্তের সংখ্যা। এমন পরিস্থিতিতে ঘরবন্দি দেশের গরিব মানুষগুলিকে অর্থনৈতিক সুবিধা দিতে প্যাকেজ ঘোষণা করেছে সরকার। যেখানে আগামী তিন মাস গরিব পরিবারগুলির মহিলাদের একাউন্টে পাঠানো হবে ৫০০ টাকা করে। তবে এই সামান্য অংকের টাকা যথেষ্ট নয়, গরিবদের একাউন্টে এই তিন মাস ৬ হাজার টাকা করে পাঠানো হোক। এমনই দাবি জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে চিঠি লিখলেন দেশের বিশিষ্টজনেরা।
বৃহস্পতিবার প্রধানমন্ত্রীর নরেন্দ্র মোদীকে এমন আবেদন জানিয়ে চিঠি লিখেছেন ৩০০ জন বিশিষ্ট মানুষ। যাদের মধ্যে রয়েছেন দেশের বিশিষ্ট অর্থনীতিবিদ, শিক্ষাবিদ, সমাজসেবী ও প্রাক্তন আমলারা। প্রধানমন্ত্রীকে লেখা চিঠিতে তাদের দাবি, ‘করোনা পরিস্থিতি সামাল দিতে সরকারের তরফে যে প্যাকেজ ঘোষণা করা হয়েছে গরিব পরিবারগুলির জন্য তা যথেষ্ট নয়। তিন মাসের জন্য গরিব মানুষগুলোর একাউন্টে মাসিক অন্তত ৬ হাজার টাকা দেওয়া হোক। পাশাপাশি যে মানুষগুলি ট্যাক্স-এর আওতার বাইরে তাদেরকেও দেওয়া হোক এই সুবিধা। তিন মাসের জন্য সরকার যদি এই পদক্ষেপ নেয় সেক্ষেত্রে বড়জোর খরচ হতে পারে ৩.৬০ লক্ষ কোটি টাকা। এই অর্থ অংকের অধিকাংশ দিক কেন্দ্রীয় সরকার ও বাকিটা রাজ্য সরকার।

পাশাপাশি, চিঠিতে তাদের আরও দাবি, সরকারের এটাও সুনিশ্চিত করা উচিত যে প্রতিমাসে দেশের এই সমস্ত মানুষ গুলিকে বিনামূল্যে অন্তত ১০ কিলো সবজি ও প্রয়োজনীয় জিনিসপত্র পৌঁছে দেওয়া। প্রধানমন্ত্রীকে লেখা চিঠিতে যারা সাক্ষর করেছেন তাদের মধ্যে অন্যতম হলেন অভিজিৎ ঘোষ, প্রভাত পট্টনায়েক, দীপক নেওয়ার, অজিত ঘোষ, জয়তী ঘোষ, রাকেশ মোহন, অশোক গুলাটি, মেঘনাথ দেশাই প্রমুখ।

প্রসঙ্গত, করোনা পরিস্থিতি সামাল দিতে ইতিমধ্যেই বড় অংকের প্যাকেজ ঘোষণা করেছে কেন্দ্রীয় সরকার। এর সঙ্গে যদি চিঠির দাবী মেনে নেওয়া হয় সে ক্ষেত্রে তিন থেকে চার গুণ অর্থ বেশি খরচ হবে কেন্দ্রীয় সরকারের। তবে সরকারি প্যাকেজকে সাধুবাদ জানিয়েই বিশিষ্টজনদের দাবি, যে প্যাকেজ সরকার ঘোষণা করেছে তা কোনোভাবেই যথেষ্ট নয় গরীব মানুষগুলোর জন্য।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.