সাবধান করলেন মোদিকে রাহুল গান্ধী ‘মোদীজি, চাকরি না দিলে যুবারা কিন্তু এবার লাঠিপেটা করবে’,

Spread the love

ওয়েব ডেস্ক:- এবার আক্রমনাত্বক ভঙ্গিতে মোদিকে সরাসরি হূমকী দিলেন রাহুল গান্ধী । দিল্লি বিধানসভা নির্বাচনে লড়াইয়ে তিন দল রয়েছে মুখ্য ভূমিকায়। আপ, বিজেপি ও কংগ্রেস। তিন দলই ভিন্ন পথে এই নির্বাচন লড়ছে। শাসকদল আপের হাতিয়ার যেখানে কাজ ও উন্নয়ন, বিজেপি সেখানে শাহিনবাগ ও জাতীয়তাবাদে শান দিচ্ছে। কংগ্রেস আবার যুবসমাজকে নিশানায় নিয়ে বেকারত্ব অস্ত্রকেই হাতে তুলে নিয়েছে কেন্দ্রীয় শাসকদলের বিরুদ্ধে লড়তে। কংগ্রেসের প্রাক্তন সভাপতি রাIহুল গান্ধী বেকারত্বের ইস্যুতে এবার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে একহাত নিয়েছেন। তিনি বলেছেন, দেশের এই বেকারত্বের হাল নিয়ে প্রধানমন্ত্রী যদি মুখ না খোলেন তবে যুব সম্প্রদায় তাঁকে লাঠি দিয়ে মারবে।

এবারের দিল্লি নির্বাচনে কংগ্রেসের খুব একটা আশা নেই বুঝেই হয়তো বেশ কয়েকদিন পিছিয়ে প্রচারে নেমেছেন রাহুল। তবে মোদীর বিরুদ্ধে আক্রমণের ঝাঁজ কম হয়নি তাঁর। এক সমাবেশে অংশ নিয়ে ওয়েনাড়ের সাংসদ বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী এখন তো খুব ভাষণ দিচ্ছেন, কিন্তু ছয় মাস পর, উনি ঘর থেকে বের হতে পারবেন না।’


কিন্তু কেন পারবেন না? রাহুলের ব্যাখ্যা, ‘দেশের যুবসমাজ ওনাকে লাঠিপেটা করে বুঝিয়ে দেবে যে চাকরি না দিলে এই দেশ কোনও ভাবেই এগোতে পারবে না।’ তিনি আরও বলেন, ‘৪৫ বছরের সর্বাধিক বেকারত্ব আমরা দেখতে পাচ্ছি এখন দেশে। কিন্তু রাষ্ট্রপতির ভাষণ, বা প্রধানমন্ত্রী, এমনকী অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণের মুখেও একবারও এই নিয়ে কোনও কথা শোনা যায়নি।’ রাহুলের দাবি, বেকারত্বই নরেন্দ্র মোদীর রাজনীতিকে আসল অক্সিজেন জোগান দিচ্ছে।

এই বিষয়ে কথা বলতে গিয়ে দিন দুয়েক আগেও রাহুল বলেন, ওই বেকার যুবকরাই যেহেতু নরেন্দ্র মোদীর রাজনীতির জন্য অক্সিজেন জোগান দেয়, তাই মোদী নিজেই চান না যে ওরা চাকরি পাক। যুবকরা চাকরি পেলে ওনার হয়ে পতাকা ধরার বা গুণ্ডামি করার কেউ থাকবে না। এমনটাই দাবি করেছেন রাগা।

সৌজন্য’- মহানগর

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.