বহরমপুরে ভরসন্ধ্যায় রাস্তায় ফেলে কুপিয়ে খুন কলেজ ছাত্রীকে, বন্দুক দেখিয়ে পালালো দুষ্কৃতী

Spread the love

বহরমপুরে ভরসন্ধ্যায় রাস্তায় ফেলে কুপিয়ে খুন কলেজ ছাত্রীকে, বন্দুক দেখিয়ে পালালো দুষ্কৃতী

রক্তিম সিদ্ধান্ত ,বহরমপুর:-   ভর সন্ধ্যেবেলার কলেজ ছাত্রীকে মেস থেকে ডেকে এনে জনসমক্ষে কুপিয়ে খুন। বাধা দিতে গেলে বন্দুক উঁচিয়ে তেড়ে গেল দুষ্কৃতি। হাড় হিম করা এহেন মর্মান্তিক ঘটনার সাক্ষী থাকল শহর বহরমপুর। সোমবার সন্ধ্যে নাগাদ বছর কুড়ির এক কলেজ ছাত্রীকে তার মেসবাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে গিয়ে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে খুন করার অভিযো। পুলিশ সূত্রে খবর, মৃত ওই কলেজ ছাত্রী বহরমপুর গার্লস কলেজের উদ্ভিদ বিজ্ঞান শাখার তৃতীয় বর্ষের ছাত্রী। মালদহের ইংরেজ বাজারের বাসিন্দা মেয়েটি পড়াশোনার জন্যই বহরমপুরের সূর্য সেন রোডে গোরাবাজারে একটি মেস বাড়িতে থাকত। এদিন তাকে মেস বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে যায় দুই যুবক। তারপর তাদেরই একজন কুপিয়ে খুন করে তাকে।এই খুনের এক প্রত্যক্ষদর্শীর দাবি, ‘সন্ধ্যাবেলা আমরা চার বন্ধু মিলে ওই রাস্তা দিয়ে আসছিলাম। দেখতে পাই রাস্তার উপর ছাত্রীটিকে ছুরি দিয়ে এক যুবক কোপাচ্ছে। আমার প্রথমে বুঝতে পারিনি যে ওর কাছে বন্দুক আছে কি না। তাকে বাধা দিতে গেলে বন্দুক বার করে গুলি চালানোর হুমকি দিতে থাকে।’

ঘটনার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যায় পুলিশ। পুলিশের অনুমান ওই যুবকের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক ছিল ওই কলেজছাত্রী। পরিবারের চাপে সাম্প্রতিককালে তাদের মধ্যে সমস্যা সৃষ্টি হয়। সেই আক্রোশ বশতই ওই কলেজ ছাত্রীকে খুন করে যুবক। আপাতত ঘটনাটির তদন্তে নেমেছে পুলিশ। এহেন ঘটনায় তীব্র চাঞ্চল্য এবং আতঙ্ক ছড়িয়েছে এলাকায়। ঘটনার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে এসে পৌঁছয় বহরমপুরের সংসদ তথা প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি অধীর রঞ্জন চৌধুরী। এই ঘটনার তীব্র নিন্দা করে প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি তথা লোকসভার পরিষদীয় বিরোধী দলনেতা অধীর রঞ্জন চৌধুরী দোষীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি করেন এবং রাজ্যের আইন শৃঙ্খলা নিয়ে প্রশ্ন তোলেন। পাশাপাশি ঘটনাস্থলে এসে উপস্থিত হন মুর্শিদাবাদের জেলা আরক্ষা আধিকারিক কে শবরী রাজকুমার মুর্শিদাবাদ জেলা পুলিশের বিশাল বাহিনী।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.