গ্রাহককে গালিগালাজ? হূমকী ধমকী দিয়ে ফোন ! ঋণ আদায়ে গভীর রাতে ফোন? এবার ব্যবস্থা নেবে খোদ RBI

Spread the love

ওয়েব  ডেস্ক: এবার ব্যাঙ্ক গুলিকে সতর্ক করল RBI গভর্নর  শক্তিকান্ত  দাস।  সময় মতো ঋণ  ফেরত না দিতে পারলে আতঙ্কে থাকেন গ্রাহক। এক আতঙ্ক হল অর্থ যোগার করে ব্যাংককে ঋণ ফেরত দেওয়ার চাপ। কিন্তু সেই চাপ বেড়ে যায়, যখন ওই গ্রাহককে ফোন করে কটুকথা বলা হয়, এমনকী হুমকি দেওয়া হয় ঋণ আদায়কারী সংস্থার তরফে। সেই ফোন আসে আবার গভীর রাতে। এমন একাধিক অভিযোগ পেয়ে নড়চড়ে বসল রিজার্ভ ব্যাংক অফ ইন্ডিয়া RBI। এদিন আরবিআইয়ের গভর্নর শক্তিনাথ দাস জানিয়ে দিলেন, ঋণ আদায়ের জন্য রাতবিরেতে গ্রাহকদের ফোন করা যাবে না, তাঁদের গালিগালাজ কোনওভাবেই করা যাবে না। এমন অভিযোগ পেলে সংশ্লিষ্ট সংস্থার বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

শুক্রবার একটি ব্যাংকিং সংস্থার অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন রিজার্ভ ব্যাংকের গভর্নর শক্তিনাথ দাস। ওই অনুষ্ঠানে ব্যাংকের গ্রাহক পরিষেবা নিয়ে কথা বলেন তিনি। তখনই ঋণ আদায়ে সংস্থাগুলির পদ্ধতি নিয়ে আলোচনা করেন। তাঁর মতে, এই ধরনের ঘটনা অর্থনৈতিক সংস্থাগুলির ভাবমূর্তির ক্ষেত্রেও ক্ষতিকর। শক্তিনাথ বলেন, “আমরা অভিযোগ পেয়েছি, ঋণ আদায়কারী সংস্থাগুলি রাতবিরেতে ফোন করে গ্রাহকদের। এমনকী তাঁদের গালিগালাজ করা হয়। ভবিষ্যতে এমন অভিযোগ পেলে উপযুক্ত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।”

এদিন আরবিআই গভর্নর জানিয়ে দিয়েছেন, এমন অভিযোগের ক্ষেত্রে ব্যাংক-সহ যে সমস্ত সংস্থা আরবিআই নথিভুক্ত তাদের ক্ষেত্রে আরবিআই নিজেই ব্যবস্থা নেবে। অন্য সংস্থাগুলির ক্ষেত্রে ব্যবস্থা নেওয়ার দায়িত্ব দেওয়া হবে আর্থিক অনিয়মের তদন্তকারী সংস্থাকে। শক্তিনাথ দাস বলেন, “এই ধরনের ঘটনা যাতে বারবার না ঘটে তার দিকে নজর দিতে হবে ব্যাংকগুলিকে। নতুন চ্যালেঞ্জকে মোকাবিলা করতে হবে। আমি সমস্ত ব্যাংকগুলিকে বলব, গ্রাহক পরিষেবার বিষয়টি মনোযোগ সহকারে দেখুন।”

উল্লেখ্য, সম্প্রতি ঋণ প্রদানকারী অ্যাপের থেকে ঋণ নেওয়ার বিষয়ে সতর্ক করেছে আরবিআই। রিজার্ভ ব্যাংক জানিয়েছে, বাজার ছেয়ে গিয়েছে বেআইনি ঋণপ্রদানকারী অ্যাপে। আর এই অ্যাপগুলির বিরুদ্ধে গুচ্ছ গুচ্ছ প্রতারণার অভিযোগও আসছে। সবচেয়ে চিন্তার বিষয় হল, এই অ্যাপগুলির মাধ্যমে কেউ প্রতারিত হলে তার দায়ও নেবে না রিজার্ভ ব্যাংক।

 

সৌজন্য :- সংবাদ প্রতিদিন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.