বাংলায় ১০০ এর নিচে বিজেপির আসন , বলছে গোয়েন্দা রিপোর্ট – বৈঠকে রাজ্য নেতাদের ওপর ক্ষোভ উগড়ে দিলেন শাহ

Spread the love

নিউজ ডেস্ক :-  এই মুহূর্তে বাংলায় চলছে বিধানসভা নির্বাচন। আর সেই নির্বাচনে জিতেই বাংলায় ক্ষমতা দখলের স্বপ্ন দেখছে গেরুয়া শিবির। কিন্তু এতদিন যাঁদের ওপর ভরসা করে বাংলা দখলের স্বপ্ন দেখছিলেন তাঁরা, এবার সেই বাংলার বিজেপি নেতাদের ওপর বেজায় চটলেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। হ্যাঁ, রবিবার দলের সাংগঠনিক বৈঠকে নিজের ক্ষোভ চেপে রাখতে পারেননি বিজেপির সেকেন্ড-ইন-কমান্ড। আর তার কারণ মূলত ভোটের সম্ভাব্য ফল নিয়ে গোয়েন্দা রিপোর্ট। রাজ্য নেতৃত্ব আর গোয়েন্দা রিপোর্টে বিস্তর ফারাক। আর তাতেই চিন্তার ভাঁজ বিজেপির প্রাক্তন সর্বভারতীয় সভাপতির কপালে।

রবিবারের বৈঠকে কেন্দ্র ধরে ধরে রাজ্য নেতারা দাবি করেন ৫ পর্বে ১২০টির কাছাকাছি আসন পেতে চলেছে বিজেপি। কিন্তু বৈঠকে থাকা রাজ্যের এক শীর্ষ নেতা জানাচ্ছেন, নেতাদের রিপোর্ট পেশ এর সময় চুপ করে সব শোনেন শাহ। তারপর হঠাৎই মেজাজ হারান স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। শীর্ষনেতাদের ধমকের সুরে বলেন, যা বলছেন, তার পিছনে তথ্য কী আছে? নেতারা বুধ ভিত্তিক ও সাংগঠনিক রিপোর্টের কথা বলেন। এরপরই অমিত শাহ তাদের সামনে ফেলেন ৫ দফার গোয়েন্দা রিপোর্ট।

সেই রিপোর্টে দেখা যায় ভোট শেষ হওয়া পাঁচ পর্বে বিজেপি মেরেকেটে ৫২ থেকে সর্বোচ্চ ৬৩ আসন পেতে পারে। আগামী তিন দফায় সর্বোচ্চ ৩৪টি আসন হাতে আসতে পারে। অর্থাৎ সবমিলিয়ে ৯৭। উত্তরবঙ্গের আনন্দ বর্মন ইস্যুতে যদি জাতপাতের সুড়সুড়ি লাগানো সফল হওয়া যায় তাহলে আসন গোটা ৫-৭ বাড়তে পারে। সেক্ষেত্রে আসন সংখ্যা হবে ১০৪। ম্যাজিক ফিগার থেকে বিজেপি পিছিয়ে প্রায় ৪৫ টি আসনে। এতেই রাতের ঘুম ছুটেছে বিজেপি নেতাদের। ক্ষোভ উগড়ে দিয়েছেন শাহ।

সৌজন্য :- এখন খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.