লক্ষ্য ২০০ আসন, অথচ প্রার্থী খুঁজতে হিমশিম খাচ্ছে বিজেপি,অবশেষে তৃতীয় ও চতুর্থ দফার ৬৩ আসনে প্রার্থী ঘোষণা

Spread the love

 

নিউজ  ডেস্ক:-  গেরুয়া শিবিরে প্রার্থী কি কম পড়িয়াছে? দফায় দফায় দিল্লিতে বৈঠকের পর কোথাও পুরনো মুখে ভরসা, কোথাও সাংসদদের লড়াইয়ের ময়দানে ফের ঠেলে দেওয়া, কোথাও আবার তৃণমূলত্যাগীদের টিকিট দেওয়া। একুশের বিধানসভা নির্বাচনের  আগে বিজেপির  প্রার্থী তালিকা নিয়ে টানাপোড়েন, ধারাবাহিক ঘটনা পরম্পরার পর আরও চমক। রবিবার তৃতীয় ও চতুর্থ দফার তালিকা প্রকাশের পর হাওড়া দক্ষিণের বিজেপি প্রার্থী রন্তিদেব সেনগুপ্ত বেঁকে বসলেন। জানালেন, তিনি প্রার্থী হতে চান না, চান দলের হয়ে প্রচার করতে।

 

আজ রবিবার প্রার্থী তালিকা প্রকাশ পাচ্ছে। দিল্লী বিজেপির সদর দফতর থেকে বিজেপির জেনারেল সেক্রেটারি অরুণ সিংহ এই প্রার্থী তালিকা ঘোষণা করছেন। এর আগে ৬ মার্চ বিজেপি প্রথম দু’দফার জন্য প্রার্থী তালিকা ঘোষণা করেছিল। প্রথম দুই দফার জন্য ৫৭ জন প্রার্থী নাম ঘোষণা করেছিল বিজেপি। এরপর আরেক দফায় অভিনেতা থেকে রাজনীতিতে নামা হিরণ চট্টোপাধ্যায়কে প্রার্থী ঘোষণা করেছিল বিজেপি।

রাজ্য বিজেপি সূত্রে জানা গেছে, বাকি প্রথম দু’দফার আসন ঘোষণা করতে গিয়ে যে বেগ পেতে হয়েছিল তার চাইতেও বেশি বেগ পেতে হচ্ছে তৃতীয় থেকে অষ্টম দফার ২৩৪টি প্রার্থীর নাম ঘোষণা করতে।

তাই এক কথায় বলা যায়, ২০০ আসন নিয়ে বাংলা জয়ের স্লোগান দিয়ে এখন প্রার্থী নির্বাচন করতে হিমশিম খাচ্ছে বঙ্গ বিজেপি। তাই রাজ্যে নির্বাচন ঘোষণার পর আজ অমিত শাহ রাজ্যে আসছেন, তবে তাও এখনও বিজেপি এর রাজ্যে তাদের প্রার্থী তালিকা প্রকাশ করতে পারলো না। তাই বিজেপির অন্দরে এখন প্রশ্ন উঠেছে, যেখানে তৃণমূল , বামফ্রন্ট তাদের প্রার্থীর নাম ঘোষণা করে দিয়েছে সেখানে বিজেপি প্রার্থী তালিকা না পেলে প্রচার করবে কী করে?

 

অবশেষে তৃতীয় দফায় ৩১টি আসনের মধ্যে ২৭টির তালিকা ঘোষণা করেছে বিজেপি। চতুর্থ দফায় ৪৪টির মধ্যে ৩৬টির তালিকা ঘোষণা করেছে তারা। এক নজরে দেখে নিন এই ২ দফায় বিজেপির প্রার্থীদের তালিকা

 

ধনেখালি: তুষার মজুমদার

পুরশুড়া: বিমান ঘোষ

গোঘাট: বিশ্বনাথ কারক

খানাকুল: সুশান্ত ঘোষ

বিষ্ণুপুর: অগ্নিশ্বর নস্কর

উলুবেড়িয়া উত্তর: চিরণ বেরা

বাগনান: অনুপম মল্লিক

আমতা: দেবতনু ভট্টাচার্য

উদয়নারায়ণপুর: সুমিতরঞ্জন কাঁড়ার

জাঙ্গিপাড়া: দেবজিৎ সরকার

হরিপাল: সমীরণ মিত্র

 

বাসন্তী: রমেশ মাঝি

কুলতলি: মিণ্টু হালদার

কুলপি: প্রণব মল্লিক

রায়দিঘি: শান্তনু বাপুলি

মন্দিরবাজার: দিলীপ জাটুয়া

জয়নগর: রবীন সর্দার

ক্যানিং পশ্চিম: অর্ণব রায়

ক্যানিং পূর্ব: কালীপদ নস্কর:

বারুইপুর পশ্চিম: দেবোপম চট্টোপাধ্যায়

মগরাহাট পূর্ব: চন্দন নস্কর

মগরাহাট পশ্চিম: মানস সাহা

ডায়মন্ডহারবার: দীপক হালদার

সাতগাছিয়া: চন্দন পাল দাস

 

মেখলিগঞ্জ: দধিরাম রায়

মাথাভাঙা: সুশীল বর্মন

কোচবিহার উত্তর: সুকুমার রায়

শীতলকুচি: বরেন চন্দ্র বর্মন

সিতাই: দীপক রায়

তুফানগঞ্জ: মালতি রাভা রায়

কুমারগ্রাম: মনোজ ওঁরাও

কালচিনি: বিশাল লামা

আলিপুরদুয়ার: অশোক লাহিড়ি

মাদারিহাট: মনোজ টিগ্গা

ভাঙড়: সৌমি হাটি

যাদবপুর: রিঙ্কু নস্কর

মহেশতলা: উমেশ দাস

বজবজ: তরুণ আদক

 

হাওড়া উত্তর: উমেশ রায়

হাওড়া মধ্য: সঞ্জয় সিংহ

মেটিয়াব্রুজ: রামজি প্রসাদ

সাঁকরাইল: প্রভাকর পণ্ডিত

পাঁচলা: মোহিত ঘাঁটি

উলুবেড়িয়া পূর্ব: প্রত্যুষ মণ্ডল

উত্তরপাড়া: প্রবীর ঘোষাল

শ্রীরামপুর: কবীর শঙ্কর বসু

চাঁপদানি: দিলীপ সিংহ

বলাগড়: সুভাষচন্দ্র হালদার

পাণ্ডুয়া: পার্থ শর্মা

 

সোনারপুর দক্ষিণ: অঞ্জনা বসু

হাওড়া দক্ষিণ: রন্তিদেব সেনগুপ্ত

আলিপুরদুয়ার: অশোক লাহিড়ি (অর্থনীতিবিদ)

ডোমজুড়: রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়

সিঙ্গুর: রবীন্দ্রনাথ ভট্টাচার্য

তারকেশ্বর: স্বপন দাশগুপ্ত

দিনহাটা: নিশীথ প্রামাণিক

টালিগঞ্জ: বাবুল সুপ্রিয়

চণ্ডীতলা: যশ দাশগুপ্ত

বেহালা পূর্ব: পায়েল সরকার

কসবা: ইন্দ্রনীল খাঁ (চিকিৎসক)

শ্যামপুর: তনুশ্রী চক্রবর্তী

চুঁচুড়া: লকেট চট্টোপাধ্যায়

 

 

তালিকা অনুসারে দিনহাটা থেকে ভোটে লড়ছেন কোচবিহারের সাংসদ নিশীথ প্রামাণিক। সেখানে তাঁর প্রতিপক্ষ তৃণমূল নেতা উদয়ন গুহ। হুগলি থেকে ভোটের ময়দানে থাকছেন লকেট চট্টোপাধ্যায়। টালিগঞ্জ থেকে ভোটে লড়বেন কেন্দ্রীয় প্রতিমন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়। পায়েল সরকার লড়বেন বেহালা পূর্ব থেকে। তাঁর প্রতিদ্বন্দী রত্না চট্টোপাধ্যায়।

 

এছাড়া চিকিৎসক ইন্দ্রনীল খানকে কসবা থেকে, রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়কে ডোমজুড় থেকে ও রবীন্দ্রনাথ ভট্টাচার্যকে সিঙুর থেকে প্রার্থী করেছে বিজেপি। সেখানে তাঁর সরাসরি লড়াই বেচারাম মান্নার সঙ্গে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.